Home / তিতাসের খবর / কড়িকান্দি ইউনিয়ন / তিতাস সদরের একমাত্র জুনিয়র উচ্চ বিদ্যালয়ের বেহাল অবস্থা
কাপাসকান্দি মডেল একাডেমীর ভবনের (কাপাসকান্দি সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের পুরতনভবন) সামনে ডানে বর্তমান প্রধান শিক্ষক এবং মাঝে কাপাসকান্দি মডেল একাডেমীর প্রথম প্রধান শিক্ষক মোহাম্মদ শাহজামান শুভ

তিতাস সদরের একমাত্র জুনিয়র উচ্চ বিদ্যালয়ের বেহাল অবস্থা

তিতাস নিউজ, ১৮ অক্টোবর ২০১৫ঃ তিতাস সদরের একমাত্র জুনিয়র বিদ্যালয়টি কাপাসকান্দিতে ১৯৬৯ সালে “জাহানারা মডেল একাডেমী” নামে মরহুম আশ্ররাফ উদ্দিন (বর্তমান সারা জাগানো চলচিত্র নায়ক ফেরদৌস এবং চলচিত্র নায়ক তৌফিক এর পিতা) শুরু করেছিলেন। জাহানারা মডেল একাডেমীর প্রথম প্রধান শিক্ষক ছিলেন কানাইগরের নিবাসী বীর মুক্তিযোদ্ধা আব্দুল মতিন মাস্টার। আব্দুল মতিন মাস্টার এবং আশ্ররাফ উদ্দিন সাহেব এলাকার লোকজন নিয়ে জাহানারা মডেল একাডেমী ভালই চলছিল কিন্তু মহান মুক্তিযোদ্ধের পর এটার হাল আর কেউ ধরেনি। যার ফলে বিদ্যালয়ের নামে এক একর ৩৫ শতক জমি থাকার পরও বিদ্যালয়টি বন্ধ হয়ে যায়।

বিদ্যালয়টির আশে পাশে আর কোন উচ্চ বিদ্যালয় না থাকায় এলাকার অনেক ছাত্র-ছাত্রী শিক্ষা বিমূখ হয়ে পড়ে। একালার শিক্ষার উন্নয়নে এবং মরহুম আশ্ররাফ উদ্দিন স্মৃতি টিকিয়ে রাখার জন্য ২০০৪ সালে জনাব খলিলুর রহমান “কাপাসকান্দি মডেল একাডেমী” নামে হাল ধরেন। কড়িকান্দি ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান সাদেক হোসেনকে সভাপতি এবং মোহাম্মদ শাহজামান শুভ কে প্রধান শিক্ষক পদে নিয়োগ দিয়ে নতুন করে শুরু করেন “কাপাসকান্দি মডেল একাডেমী”। নব উদ্দোমে কাজ শুরু করে কাপাসকান্দির মোহাম্মদ খলিলুর রহমান, ডাক্তার মুজিব, মো. আমির হোসেন,মোহাম্মদ আক্কেল মেম্বার, নুরে আলম, এলিয়াস মোল্লা, মরহুম খালেক মেম্বার, মোহাম্মদ মোশারফ হোসেন। দুই বছর শিক্ষকতা করার পর প্রধান শিক্ষক মোহাম্মদ শাহজামান শুভ বিদেশ চলে যান। তারপর থেকে বিদ্যালয়ের কাজ কচ্চপ গতিতে চলছে এবং পাঠদানের স্বীকৃতি পেয়েছে। এখনও কোন ভবন নাই। পাঠদান করা হয় কাপাসকান্দি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের পুরাতন ভবনে। অফিসের দরজা-জানালা নাই। বর্তমান সভাপতি আমির হোসেন ,বর্তমান প্রধান শিক্ষক মোশারফ হোসেন, আক্কেল মেম্বার, গ্রামবাসী এবং অন্যান্যদের অনুদানে চলছে বিদ্যালয়ের শিক্ষক বেতন।
এলাকাবাসী খুবই আশাবাদী এক সময় এই বিদ্যালয়ের উন্নয়ন হবে, হাল ধরবে এই এলাকার বর্তমান এম.পি. জনাব আমির হোসেন ভূঞা অথবা বাঙ্গালার সারা জাগানো দুই সহদর চলচিত্র নায়ক ফেরফৌস এবং তৌফিক অথবা কোন হৃদয়বান ব্যাক্তি।

Check Also

কুমিল্লায় বিনামূল্যে চিকিৎসাসেবা চালু করেছে সেনাবাহিনী

ডেস্ক রিপোর্ট ● কুমিল্লায় বিভিন্ন স্থানে বিনামূল্যে ভ্রাম্যমান চিকিৎসাসেবা চালু করেছে বাংলাদেশ সেনাবা’হিনী, কুমিল্লা এরিয়া। ...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *